লিবরার সঙ্গে থাকবে না পেপ্যাল

লিবরা নামে ভার্চ্যুয়াল মুদ্রা বা ক্রিপটোকারেন্সি আনার ঘোষণা দিয়েছে ফেসবুক। এ সেবা আনতে অর্থ লেনদেনকারী প্রতিষ্ঠান পেপ্যালের মতো সহযোগীকে যুক্ত করেছিল প্রতিষ্ঠানটি। তবে লিবরা ঘিরে বিভিন্ন দেশ থেকে নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া পাচ্ছে ফেসবুক। এর অনুমোদন নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন আইন প্রণেতারা।

এ পরিস্থিতিতে ফেসবুকের উদ্যোগের সঙ্গে না থাকার ঘোষণা দিল পেপ্যাল হোল্ডিংস ইনকরপোরেশন। আপাতত ফেসবুকের তৈরি লিবরা অ্যাসোসিয়েশন থেকে দূরে থাকার সিদ্ধান্তের বিষয়টি বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে নিশ্চিত করেছে পেপ্যাল কর্তৃপক্ষ।

রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, শুক্রবার পেপ্যালের পক্ষ থেকে লিবরা অ্যাসোসিয়েশন ছাড়ার কথা বলা হয়। তারা নিজেদের মূল ব্যবসায় নজর দিতে চায়। তবে লিবরার চালু করতে তাদের সমর্থন থাকবে বলে জানায়। লিবরা অ্যাসোসিয়েশনের সহযোগিতায় ২০২০ সালের জুন মাসে নতুন ডিজিটাল মুদ্রা চালুর ঘোষণা দিয়েছে ফেসবুক। তবে বর্তমানে বিশ্বজুড়ে নীতিনির্ধারকদের সমালোচনা ও তদন্তের মুখে পড়েছে এ প্রকল্প।

ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, নীতিনির্ধারকদের নজরদারি এড়াতে লিবরায় নিজেদের অন্তর্ভুক্তি পুনর্বিবেচনা করছে ভিসা এবং মাস্টারকার্ডও। ইউরোপে লিবরার ব্যবহার বন্ধ করতে ফ্রান্স ও জার্মানি ব্যবস্থা নেওয়ার কথা বলেছে।

ইয়ুথ ভিলেজ/নিজস্ব প্রতিবেদক